loader image for Bangladeshinfo

ব্রেকিং নিউজ

  • প্রধানমন্ত্রী রোববার ব্রুনাই যাবেন

  • লাইলাতুল বরাতে পটকা-আতশবাজি নিষিদ্ধ

  • সাইবার অপরাধ রিপোর্টিংয়ে ফেলোশিপ পেলেন চার সাংবাদিক

  • রোহিঙ্গাদের অবশ্যই ফিরে যেতে হবে: প্রধানমন্ত্রী

  • ২২ এপ্রিল ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠান বন্ধ

ফিঞ্চের টানা দ্বিতীয় সেঞ্চুরিতে জিতলো অস্ট্রেলিয়া


ফিঞ্চের টানা দ্বিতীয় সেঞ্চুরিতে জিতলো অস্ট্রেলিয়া

পাকিস্তানের বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজে আধিপত্য বজায় রেখেছে অস্ট্রেলিয়া। রোববার (২৪ মার্চ) শারজায় দ্বিতীয় ওয়ানডেতেও জিতেছে অজিরা। অ্যারন ফিঞ্চের টানা দ্বিতীয় সেঞ্চুরিতে পাকিস্তানকে ৮ উইকেটে হারিয়ে পাঁচ ম্যাচ সিরিজে ২-০ ব্যবধানে এগিয়ে গেলো টিম অস্ট্রেলিয়া। প্রথম ওয়ানেডেতেও অস্ট্রেলিয়ার কাছে একই ব্যবধানে হেরেছিল পাকিস্তান।

শারজা ক্রিকেট স্টেডিয়ামে টস জিতে ব্যাট করতে নেমে মোহাম্মদ রিজওয়ানের অভিষেক সেঞ্চুরিতে ৭ উইকেটে ২৮৪ রান করে পাকিস্তান। জবাবে ব্যাট করতে নেমে অ্যারন ফিঞ্চের শতরানে ১৩ বল হাতে রেখে জয় তুলে নেয় অস্ট্রেলিয়া।

২৮৫ রানের লক্ষ্যে ব্যাট করতে নেমে শুরু থেকেই পাকিস্তানের বোলারদের শাসন করতে থাকেন দুই অজি ওপেনার উসমান খাজা ও অধিনায়ক অ্যারন ফিঞ্চ। ম্যাচের নিয়ন্ত্রণে নিয়ে নেন তাঁরা। পাকিস্তানের বোলারদের কোনো রকম সুযোগই দেননি এই দু’জন।

দুই’শ রানের জুটিতে ম্যাচ থেকেই ছিটকে যায় পাকিস্তান। ওয়ানডে ক্যারিয়ারের ১৩তম সেঞ্চুরি তুলে নেন অজি অধিনায়ক ফিঞ্চ। তবে শতরান মিস করেছেন আরেক ওপেনার ওসমান খাজা। ২০৯ রানে ভাঙে প্রথম উইকেট জুটি। ৮৮ রান করে আউট হন খাজা। গ্লেন ম্যাক্সওয়েল ১৯ রান করে সাজঘরে ফেরত যান।

তবে এরপর আর সমস্যায় পড়তে হয়নি অস্ট্রেলিয়াকে। দলকে জয়ের বন্দরে পৌঁছে দিয়েই মাঠ ছাড়েন ফিঞ্চ ও শন মার্শ। ১৩ বল হাতে রেখে দুই উইকেট হারিয়ে ২৮৫ রান তোলে অস্ট্রেলিয়া। ফিঞ্চ ক্যারিয়ার-সেরা ইনিংস খেলে ১৫৩ রানে অপরাজিত ছিলেন। পাকিস্তানের ইয়াসির শাহ একটি উইকেট নেন।

টস জিতে ব্যাট করতে নেমে প্রথম ওভারেই ওপেনার ইমাম-উল-হকের উইকেট হারায় পাকিস্তান। দলীয় ৩৫ রানে আউট হন আরেক ওপেনার শান মাসুদ। তৃতীয় উইকেটে ৫২ রান যোগ করে চাপ সামাল দেন হারিস সোহাইল ও মোহাম্মদ রিজওয়ান। সোহাইল ৩৪ রান করে দলীয় ৮৭ রানে আউট হন। এরপর উমর আকমল ১৬ রান করে প্যাভিলিয়ন ফেরত যান।

পঞ্চম উইকেট জুটিতে অধিনায়ক শোয়েব মালিককে সঙ্গে নিয়ে দৃঢ় প্রতিরোধ গড়েন রিজওয়ান। এই দু’জনের ব্যাটে ভর করেই ২০০ রানে কোটা পার করে পাকিস্তান। ১২৭ রান আসে শোয়েব মালিক ও রিজওয়ানের ব্যাট থেকে। রিজওয়ান ওয়ানডে ক্যারিয়ারের প্রথম সেঞ্চুরি করেন। শোয়েব মালিক ওয়ানডে ক্যারিয়ারের ৪৪তম অর্ধশত রান তুলে নেন। 

২৩৯ রানে শোয়েব মালিক ৬০ রান করে আউট হন। রিজওয়ান ১১৫ রান করে যখন আউট হন, রান তখন ২৫৪। শেষ পর্যন্ত ব্যাট করে ৭ উইকেটে ২৮৪ করে শোয়েবরা। অস্ট্রেলিয়ার কোউলটার নাইল ও রিচার্ডসন দুইটি এবং লিওন জাম্পা ও ফিঞ্চ একটি করে উইকেট নেন।

এদিন অ্যারন ফিঞ্চ ম্যাচ সেরা নির্বাচিত হয়েছেন। আগামী ২৭ মার্চ আবুধাবিতে সিরিজের তৃতীয় ওয়ানডে ম্যাচটি হবে।

Loading...