loader image for Bangladeshinfo

ব্রেকিং নিউজ

  • কোভিড-১৯ চিকিৎসায় উত্তরায় ৩০০ শয্যার হাসপাতাল উদ্বোধন

  • মাস্ক পরার নতুন পরামর্শ দিয়েছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা

  • মোহাম্মদ নাসিমের অবস্থা সংকটাপন্ন, ৭২ ঘণ্টা নিবিড় পর্যবেক্ষণে

  • দেশে করোনায় ২৪ ঘন্টায় ৩৫ জনের মৃত্যু, ২৬৩৫ জন শনাক্ত, সুস্থ ৫২১ জন

  • প্রবাসী-আয়ে ১৬.৫৬ বিলিয়ন মার্কিন ডলারের নতুন রেকর্ড

মিরপুর টেস্টে মুমিনুলের সেঞ্চুরি


মিরপুর টেস্টে মুমিনুলের সেঞ্চুরি

প্রায় এক বছর তিন মাস আগে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে অষ্টম টেস্ট সেঞ্চুরি করেছিলেন মুমিনুল হক। এরপর লম্বা সময় ধরে রান-খরা। অবশ্য তাঁর ব্যাট থেকে মাঝে একটি ফিফটি এসেছে। এই সময়ে বেশিরভাগ খেলাই ছিল দেশের বাইরে। অবশেষে চেনা আবহ পেয়ে মাঠে নামার আগেই বড় ইনিংসের কথা দিয়েছিলেন মুমিনুল। বাংলাদেশ অধিনায়ক শতরান করে সেই কথার মান রেখেছেন।

জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে মিরপুর টেস্টের দ্বিতীয় দিন শেষে ৭৯ রানে অপরাজিত ছিলেন মুমিনুল। সোমবার (২৪ ফেব্রুয়ারি) তৃতীয় দিন সকালে নেমে দ্রুতই তুলেছেন সেঞ্চুরি। ১৫৬ বলে ১২ চারে তিন অঙ্কে পৌঁছান তিনি। ৯৬ থেকে চার মেরেই মাইলফলক ছুঁয়ে স্বস্তিতে ব্যাট উঁচু করে তুলেছেন টেস্টে বাংলাদেশের অন্যতম সফল ব্যাটসম্যান মুমিনুল।

টেস্টে মুমিনুলের এটি নবম সেঞ্চুরি। সাদা পোশাকে বাংলাদেশের ব্যাটসম্যানদের মধ্যে সর্বোচ্চ সেঞ্চুরি করার কীর্তিতে তামিম ইকবালের পাশেও বসলেন তিনি। মুমিনুলের নয় সেঞ্চুরির সবগুলোই এসেছে দেশের মাটিতে। সাতটি সেঞ্চুরি তিনি করেছেন চট্টগ্রামে, বাকি দু’টি মিরপুর শেরেবাংলা স্টেডিয়ামে।

দেশের মাঠে বরাবরই ঝলক দেখানো মুমিনুল ইনিংসের শুরু থেকেই ছিলেন চনমনে। চারে নেমে থিতু হতে সময় নেননি। স্বচ্ছন্দে এগিয়ে রান বাড়িয়েছেন নিজের, একইসঙ্গে দলের। আগের দিনই অনায়াসে ফিফটি তুলে বড় কিছুর আভাস দিয়েছিলেন।

মুমিনুলের সেঞ্চুরির পাশাপাশি ফিফটি তুলে নিয়েছেন মুশফিকুর রহিম। জিম্বাবুয়ের ২৬৫ রান ছাড়িয়ে লিড নিয়ে বড় সংগ্রহের দিকে ছুটছে টাইগাররা। চতুর্থ উইকেট জুটিতেও এসেছে শতরান। এই প্রতিবেদন লেখার সময়, তৃতীয় দিনের প্রথম ঘন্টার পরে ৮৬ ওভার শেষে বাংলাদেশের স্কোর তিন উইকেটে ৩০৪ রান। মুমিনুল খেলছেন ১০৩ রান নিয়ে, ৭০ রান নিয়ে খেলা মুশফিকও দিচ্ছেন সেঞ্চুরির আভাস।

মিরপুর টেস্টের তৃতীয় দিনেও উইকেট ব্যাট করার জন্য বেশ ভালো দেখাচ্ছে। আহামরি কোনো বোলার না থাকায় জিম্বাবুয়েও তৈরি করতে পারছে না সুযোগ। মুমিনুল পরিস্থিতির ফায়দা তুলেছেন শতভাগ, বাড়তি তেমন কিছু করার দরকারই পড়েনি।

এই টেস্ট শুরুর আগের দিন সংবাদ সম্মেলনে দলের ব্যাটসম্যানদের টানা রান-খরা থেকে বেরিয়ে আসার প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন মুমিনুল। দলের সবার হয়েই বলেছিলেন, শিগগিরই ব্যাটসম্যানদের কাছ থেকে আসছে শত, দ্বিশত এমনকি ত্রিশত রানের ইনিংস! আপাতত মুমিনুল নিজেই কথা রাখলেন ব্যাট হাতে নেমে।

Loading...